ঢাকা | |
সংবাদ শিরোনাম :
লাখো মুসল্লির লাব্বাইক ধ্বনিতে মুখরিত তাবুর শহর মিনা পশুরহাটে অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা রোধে গোয়েন্দা নজরদারি বৃদ্ধি করা হয়েছে: কমান্ডার আরাফাত আনার হত্যা মামলায় স্বেচ্ছায় জবানবন্দি দেন বাবু ১৫২ কোটি টাকা আত্মসাৎ: মূসকের সাবেক কমিশনার ওয়াহিদার দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা জি-৭ মাত্র ৩% সামরিক ব্যয় কমালে ক্ষুধামুক্ত হবে সারা বিশ্ব ১০০ কোটি ব্যয়ে বুয়েটে হবে ন্যানো ল্যাব: পলক প্রবৃদ্ধি টেকসই করতে পরিবেশ রক্ষায় গুরুত্ব দিতে হবে: পরিবেশমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রী ভারত সফর থেকে শক্তি সঞ্চয় করে এসেছেন : রিজভী সুনামগঞ্জে এসএস পরিবহন থেকে ভারতীয় পণ্য জব্দ বেনজীরের বিরুদ্ধে শিগগিরই মামলা : দুদক আইনজীবী

আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুপক্ষের দ্বন্দ্ব, ব্যবসায়িকে কুপিয়ে খুন

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে আধিপত্য বিস্তার ও পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় আমিরুল হোসেন নান্নু (৪৫) নামের এক ব্যবসায়ি ও
  • আপলোড সময় : ১৪ মার্চ ২০২৪, দুপুর ৩:২৮ সময়
  • আপডেট সময় : ১৪ মার্চ ২০২৪, দুপুর ৩:২৮ সময়
আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুপক্ষের দ্বন্দ্ব, ব্যবসায়িকে কুপিয়ে খুন ছবি : সংগৃহীত
কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে আধিপত্য বিস্তার ও পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় আমিরুল হোসেন নান্নু (৪৫) নামের এক ব্যবসায়ি ও স্থানীয় আওয়ামী লীগের কর্মীকে কুপিয়ে খুন করা হয়েছে।

বুধবার (১৩ মার্চ) রাত ৮টার দিকে উপজেলার যদুবয়রা ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের উত্তর চাঁদপুর গ্রামের ডাকুয়া নদীর পাড়ের একটি ভুট্টা খেতের মধ্যে থেকে লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ।

নিহত আমিরুল হোসেন নান্নু কুমারখালী উপজেলার যদুবয়রা ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের উত্তর চাঁদপুর গ্রামের মৃত আবদুল জলিলের ছেলে। গ্রামের বাজারে মাছের আড়তদারি করতেন। মাছের ঘেরও আছে তার। এসবের পাশাপাশি স্থানীয় আওয়ামী লীগের একাংশের কর্মী ছিলেন। সে ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি তহিদ মাস্টারের পক্ষের কর্মী।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকা প্রার্থীর পক্ষে ভোট করেছেন। এ আসনে নৌকার প্রার্থী ছিলেন সাবেক সংসদ সদস্য ও আওয়ামী যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ব্যারিস্টার সেলিম আলতাফ জর্জ। নির্বাচনে তিনি পরাজিত হয়েছেন।

নিহতের পরিবার, পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আধিপত্য বিস্তার ও পূর্ব শত্রুতাকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের লোকজন নান্নুকে কুপিয়ে ও মারপিট করে হত্যা করেছে। রাত ৮ টার দিকে একটি ভুট্টা খেতের তার রক্তাক্ত মরদেহের খোঁজ পাওয়া যায়। খবর পেয়ে মরদেহ উদ্ধার করেছে কুমারখালী থানার পুলিশ।

জাতীয় নির্বাচনে নিহত নান্নু নৌকার পক্ষে ভোট করেছেন। ভোটে নৌকার প্রার্থী হেরে যান। আর অভিযুক্ত বা প্রতিপক্ষের লোকজন স্বতন্ত্র প্রার্থী ট্রাক প্রতিকের প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য আব্দুর রউফের পক্ষে ভোট করেছেন। ভোটে রউফ বিজয়ী হন।

নির্বাচনের পরেও পূর্ব শত্রুতার ও আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে কিছুদিন ধরে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছিল। দুই পক্ষের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিলো। এরই জের ধরে নান্নুকে কুপিয়ে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। এঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে।

অভিযুক্তদের বাড়িতে নিহতের পরিবারের লোকজন হামলা করে বাড়িঘর ভাংচুর করেছে। ঘটনাস্থলে থানা পুলিশ ও ডিবি উপস্থিত থেকে পরিবেশ নিয়ন্ত্রনে রেখেছে।

নিহতের পরিবার ও তার স্বজনরা বলেন, নান্নু ইফতার শেষ করে বাড়ি থেকে কেশবপুরে তার ইজারা নেওয়া দিঘিতে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে তার গতিরোধ করে জোরপূর্বক পাশের একটি কলাবাগানে নিয়ে পিটিয়ে ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে প্রতিপক্ষরা। সবুজ, মাসুদ, আকাশ, রহমান সহ প্রতিপক্ষের লোকজন নান্নুকে হত্যা করেছে। আমরা হত্যাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি। খুনীদের ফাসি চাই।

এ বিষয়ে কুমারখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আকিবুল ইসলাম বলেন, মরদেহ উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। আমরা বিষয়টি খতিয়ে দেখছি। আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে এই হত্যাকাণ্ড ঘটে থাকতে পারে। নতুন করে সংঘর্ষ এড়াতে ওই এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

অপরাধীদের কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না জানিয়ে তিনি বলেন, বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক আছে। বিষয়টি তদন্ত করে অপরাধীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
  • বিষয়:

নিউজটি আপডেট করেছেন: বাংলা নিউজ নেটওয়ার্ক ডেস্ক।

বাংলা নিউজ নেটওয়ার্ক ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
কমেন্ট বক্স
সর্বশেষ সংবাদ
নামাজ আদায় করার জন্য প্রস্তুত করা হচ্ছে জাতীয় ঈদগাহ মাঠ

নামাজ আদায় করার জন্য প্রস্তুত করা হচ্ছে জাতীয় ঈদগাহ মাঠ